পশ্চিমবঙ্গে আমের দাম আগুন! ষষ্ঠীতে জামাইদের পাতে আম থাকবে তো?

Editor Desk

Follow
Whatsapp Channel

জ্যৈষ্ঠ মাস পড়ে গেছে, এবার পালা জামাই আদরের। ‌জামাইষষ্ঠী বলে কথা শ্বশুরবাড়িতে ভুরিভোজ তো হবেই। পোলাও মাংস মিষ্টি এসব তো আছেই তার পাশাপাশি ফলের রাজা না থাকলে হয়! জামাইষষ্ঠী তো সকালটা শুরুই হয় লুচি আর ফলাহার দিয়ে। আর সেই ফলাহারের অন্যতম আকর্ষণ অবশ্যই ফলের রাজা আম। কিন্তু জামাইষষ্ঠীতে এই আমের দাম (Mango Price) কত হবে তা কি জানেন!

মাথার উপর সূর্যের তাপ জানান দিচ্ছে গরম মরসুম ভালোই চলে এসেছে। কিন্তু তারপরেও এখনো পর্যন্ত বাজারে পর্যাপ্ত পরিমাণে আমের যোগান দেখতে পাওয়া যাচ্ছে না। মূলত এই কারণেই আমের দামও রয়েছে বেশ অনেকটাই। কিন্তু এই আসন্ন জামাইষষ্ঠীতে কত হবে আমের দাম? হাত দিতে কি ছ্যাকা লাগবে শ্বশুর মশাইদের?

আমের দামে পকেটে চাপ:

সম্প্রতি এই প্রশ্নই করা হয়েছিল এক আম বিক্রেতাকে। তিনি জানান বাজারে বিভিন্ন ফলের দোকানে ইতিমধ্যে ল্যাংড়া, ফজলি, হিমসাগর আম এসেছে। কিন্তু দাম সেই ঊর্ধ্বমুখী। আমের দাম(Mango price) শুরু হচ্ছে ৮০ টাকা কেজি থেকে। এমনকি বর্তমানে হিমসাগর বিক্রি হচ্ছে ১২০ টাকা কেজি দরে। তাই এখনো পর্যন্ত ক্রেতারা সেই ভাবে আম কিনছেন না। যদিও তিনি জানান জামাইষষ্ঠীর সময় আমের দাম কমার সম্ভবনা রয়েছে। আশা করা হচ্ছে জামাইষষ্ঠীর আগে আমের যোগান বাড়লে আমের দাম(Mango price) আরো কিছুটা কমবে।

ব্যাবসায়ীদের কী মত:

আনন্দ পাল নামের আরেক ব্যবসায়ী জানিয়েছেন এবছর আমের ফলন ভালো নেই। আমের মুকুল এবছর ভালো এলেও দুদিন বৃষ্টি হওয়ায় সেই মুকুল ঝড়ে যায়। তবে বাঙালির কী আম ছাড়া চলে! গরমের দুপুরে খাবারের শেষ পাতে আম না হলে হয়! তাই তারও আশা আমের যোগান আগামীতে বাড়বে। এখনো বেশ কিছু আম রয়েছে যা বাজারে আসা বাকি। আরেক ক্রেতা রামনারায়ণ শর্মা জানান বর্তমান সময়ে বাজারে আমের যা দাম তা কেনা অসম্ভব!

তবে এখনো পর্যন্ত ক্রেতা থেকে বিক্রেতা সকলেই ধোঁয়াশার মধ্যেই রয়েছে। তবে এবছর জামাইদের পাতে আম সাজিয়ে দিতে গেলে একটু যে বেশি টাকাই খরচ হবে শ্বশুর মশাইদের তা খানিক আন্দাজ করাই যাচ্ছে।

About Author

1 thought on “পশ্চিমবঙ্গে আমের দাম আগুন! ষষ্ঠীতে জামাইদের পাতে আম থাকবে তো?”

Leave a Comment